বুধবার, আগস্ট ২১, ২০১৯
প্রথমপাতা > গ্যালারি

বিভাগের শিক্ষাসফর: যেন স্মৃতির জলসাঘর!  

জাকির হোসেন* চলছে আমাদের জাদুর গাড়ি। অজানা অদৃশ্য স্বপ্নপুরীর দিকে। সবার  মধ্যে দূর দ্বীপবাসিনীকে দেখার উত্তেজনা। বৃদ্ধ বয়সে বা কর্মব্যস্ত জীবনে সোনালী অতীত হয়ে থাকে বিশ্ববিদ্যালয় জীবনের শিক্ষা সফর। শেষ বেলাতে অতীতের স্মৃতি রোমন্থন করতে গেলে কখনো শিক্ষা সফরের মজার বিষয়গুলো মিস হয় না। ছেলে-মেয়ে, নাতি-নাতনী সবাইকে মজার সময়ের কথা বলতে গেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষাসফরের কথা আসবেই। শিক্ষাসফর হচ্ছে আমাদের দেশের শিক্ষার্থীদের বিশ্ববিদ্যালয় জীবনের সৌন্দর্য্য। এমনই একটি গুরুত্বপূর্ণ স্মৃতি সংগ্রহ করতে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যয়ন বিভাগ শিক্ষা সফরে গিয়েছিল দ্বারুচিনি দ্বীপ খ্যাত সেন্টমার্টিনে। ৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ তারিখ গোধূলির অস্তমিত বিকেলে ক্যাম্পাস থেকে শুরু হয় আমাদের যাত্রা। বাস বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটক অতিক্রম করার সঙ্গে

বিস্তারিত পড়ুন

বিভাগের সপ্তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপিত

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যয়ন বিভাগের ৭ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী আজ ২৩ জানুয়ারি, ২০১৯ তারিখে জাঁকজমকপূর্ন পরিবেশে উদযাপিত হয়েছে। গত ২১ ডিসেম্বর, ২০১৮ তারিখে বিভাগটি ৭ম বছর পূরণ করে ৮ম বছরে পদার্পন করে। বিভাগের ৭ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষ্যে আজ আনন্দ শোভাযাত্রা, আজীবন সম্মাননা প্রদান ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ মিনার চত্বরে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আয়োজনের উদ্বোধন ঘোষণা করেন সাবেক প্রধান তথ্য কমিশনার অধ্যাপক ড. মো. গোলাম রহমান। এসময় বিভাগের শিক্ষার্থীদের সাথে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন দ্য ডেইলি স্টার পত্রিকার সম্পাদক মাহফুজ আনাম, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা ও মানবিকী অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. মোজাম্মেল হক, সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যয়ন বিভাগের সভাপতি উজ্জ্বল কুমার

বিস্তারিত পড়ুন

সবচেয়ে রোমাঞ্চকর পেশা সাংবাদিকতা: মাহফুজ আনাম

শরিফুল ইসলাম সীমান্তঃ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যয়ন বিভাগের ৭ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় সাংবাদিকতাকে পৃথিবীর সবচেয়ে সম্মানজনক এবং রোমাঞ্চকর পেশা বলে মন্তব্য করেছেন দ্য ডেইলি স্টার’র সম্পাদক মাহফুজ আনাম। বুধবার ‘সাংবাদিকতা শিক্ষা ও পেশাগত চ্যালেঞ্জ’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন। তিনি বলেন, “সাংবাদিকরা হচ্ছে সমাজের বঞ্চিত, শোষিত এবং লাঞ্ছিত শ্রেণির মানুষের প্রতিনিধি। তারা যদি তাদের হয়ে কথা না বলে তবে কে বলবে? তাদের হয়ে কথা বলার মন মানসিকতা নিয়েই তরুণ প্রজন্মকে সাংবাদিকতায় আসতে হবে।” এদিকে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে বিভিন্ন কার্যক্রমের মধ্য দিয়ে দিনটি পালন করেছে বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। অনুষ্ঠিত হয়েছে বর্ণাঢ্য র‌্যালী, দুই জন প্রথিতযশা

বিস্তারিত পড়ুন

বিভাগের সপ্তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর নিমন্ত্রণ

সুধী জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যয়ন বিভাগের সপ্তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষ্যে আগামী ২৩ জানুয়ারি ২০১৯ বুধবার আনন্দ শোভাযাত্রা, আজীবন সম্মাননা প্রদান এবং ‘সাংবাদিকতা শিক্ষা ও পেশাগত চ্যালেঞ্জ’ শীর্ষক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়েছে। অনুষ্ঠানে সাংবাদিকতা শিক্ষা এবং পেশাগত ক্ষেত্রে অবদানের স্বীকৃতি সরূপ সাবেক প্রধান তথ্য কমিশনার অধ্যাপক ড. গোলাম রহমান এবং দ্য ডেইলি স্টার পত্রিকার সম্পাদক জনাব মাহফুজ আনাম’কে বিভাগের পক্ষ থেকে ‘আজীবন সম্মাননা-২০১৮’ প্রদান করা হবে। এ আয়োজনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্য অধ্যাপক ড. ফারজানা ইসলাম। উক্ত অনুষ্ঠানে আপনার উপস্থিতি একান্ত কাম্য। শুভেচ্ছান্তে উজ্জ্বল কুমার মণ্ডল সভাপতি সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যয়ন বিভাগ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়। অনুষ্ঠানসূচি: সকাল ৯.৩০ :অতিথিদের আগমন সকাল ১০.০০ :পায়রা অবমুক্তকরণ ও

বিস্তারিত পড়ুন

জাবিতে শিক্ষক হিসেবে তথ্যমন্ত্রীর পাঠদান

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগে খ-কালীন শিক্ষক হিসেবে মাস্টার্সের শিক্ষার্থীদের পাঠদান করলেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। বৃহস্পতিবার (১৭ জানুয়ারি) বিকেল সাড়ে ৪টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত তিনি বিভাগটির ৪২তম আবর্তনের(মাস্টার্স) শিক্ষার্থীদের 'গ্লোবাল ক্লাইমেট চেঞ্জ' বিষয়ে পাঠদান করেন। এর আগে একই বিষয়ে ১০টি ক্লাস নেন তিনি। তথ্যমন্ত্রী হওয়ার আগে গত বছরের সেপ্টেম্বর থেকেই তিনি বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থীদের নিয়মিত পাঠদান করে আসছেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক হিসেবে এ পাঠদান অব্যাহত রাখবেন বলেও তিনি শিক্ষার্থী এবং সাংবাদিকদের জানিয়েছেন। পাঠদান শেষে তথ্যমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, ‘গেল বছরের সেপ্টে¤॥^র মাস থেকে শিক্ষার্থীদের যতগুলো ক্লাস নেওয়ার কথা ছিল, তার মধ্যে একটি ক্লাস বাকি ছিল। নির্বাচনী ব্যস্ততার কারণে তা নেওয়া সম্ভব হয়নি।

বিস্তারিত পড়ুন

জাবির সেরা তিন বিতার্কিক

রাইয়ান বিন আমিন ফয়সাল মাহমুদ শান্তু খুব সহজভাবে প্রতিপক্ষের কথাগুলোকে যুক্তি দিয়ে ভাংতে পারে। তাজরীন ইসলাম তন্বী প্রত্যেকটা প্রস্তাবকে সমান গুরুত্ব দিয়ে দলের মধ্যে অলোচনা তৈরী করতে বেশ পটু। আর প্রাসঙ্গিক তথ্য সংগ্রহ করতে মারুফ বিন মোজাম্মেল অতুলনীয়। তিনজনের এই যোগফলেই সম্প্রতি শেষ হওয়া জাতীয় বিতর্ক প্রতিযোগীতা ২০১৮- তে দেশ সেরা ৩২ টি বিশ্ববিদ্যালয়কে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ডিবেট অরগানাইজেশন(জুডো)। বিতর্ক নিয়ে স্বপ্নচারী তিন তরুণের কথা জানাচ্ছেন রাইয়ান বিন আমিন। স্কুল-কলেজ জীবনে কখনো বিতর্ক করা হয়নি। তবে আবৃত্তি করতেন। ২০১৫ সালে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের দর্শন বিভাগে ভর্তি হওয়ার পরই দুই বড় ভাইয়ের চাপে পড়ে মূলত বির্তকের সাথে যুক্ত হন। প্রথমদিকে যখন বিতর্ক

বিস্তারিত পড়ুন

স্বর্ণ বিজয়ী ৭ জন

রাইয়ান বিন আমিন সম্প্রতি জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাত শিক্ষার্থী ‘ডিউক অব এডিনবার্গ অ্যাওয়ার্ড’ পেয়েছেন। বিশ্বব্যাপী কমনওয়েলথভুক্ত দেশগুলোর মধ্য থেকে সেরা ইয়ুথ একটিভিস্টদের বৃটিশ হাইকমিশনের মাধ্যমে এ অ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হয়। ২০১২ সাল থেকে বাংলাদেশকে এই অ্যাওয়র্ডের অন্তর্ভূক্ত করা হয়। স্বর্ণপদক প্রাপ্ত শিক্ষার্থীর সবাই স্কুল- কলেজ পর্যায় থেকেই স্বেচ্ছাসেবার সাথে সম্পৃক্ত। বিশ্ববিদ্যালয়ে আসার পর কাজের দুয়ার আরও উন্মুক্ত হয়ে যায়। বড় পরিসরে কাজ করার সুযোগ পেয়ে তা হাতছাড়া করেননি। যুক্ত হয়েছেন“জাহাঙ্গীরনগর ইউনিভার্সিটি মডেল ইউনাইটেড নেশন অ্যাসোসিয়েশন” (জেইউমুনা)- এর সাথে। সংগঠনটি মূলত ইয়ুথ লিডারশীপ, কমিউনিকেশন স্কীল, নেগোসিয়েশন স্কীল এবং নেটওয়ার্কিং- এর বৃদ্ধির জন্য কাজ করে থাকে। এসব কাজের অভিজ্ঞতা থেকে উৎসাহিত হয়ে ২০১৬ সালের নভেম্বরে

বিস্তারিত পড়ুন

হালদা: চলচ্চিত্র ছাপিয়ে একটি আন্দোলনের নাম!

 শরিফুল ইসলাম সীমান্ত:  নির্মাতা তৌকির আহমেদ।’অজ্ঞাতনামা’ দেখার পর দিন দিন তার কাছে বেড়ে চলা প্রত্যাশার পারদটা এবার মিটারের সর্বোচ্চ কাঁটাকে ছুঁয়ে ফেলে। এরপর অপেক্ষা। কবে আসবে তার পরবর্তী চলচ্চিত্র? অপেক্ষার প্রহর খুব বেশি দীর্ঘ করেননি এই গুণী নির্মাতা। এক বছরের বিরতি দিয়ে আবারো হাজির হয়েছেন নতুন চলচ্চিত্র ’হালদা’ নিয়ে। হালদা চলচ্চিত্রের কাহিনী গড়ে উঠেছে বাংলাদেশের অন্যতম এক নদী হালদা ও নদীটিকে উপজীব্য করে বেঁচে থাকা মানুষের জীবনকে ঘিরে। খাগড়াছড়ির রামগড় উপজেলার হালদাছড়া (পাহাড়ি ঝর্ণা) থেকে এই নদীর উৎপত্তি। ৮৮ কিলোমিটার দীর্ঘ এই নদী চট্টগ্রামের কালুরঘাট এলাকায় কর্ণফুলী নদীতে এসে মিশেছে। হালদার গল্পটা মূলত আমাদেরই গল্প। যে গল্পের প্রতিটি দৃশ্যে মিশে আছে বাংলার মানুষের

বিস্তারিত পড়ুন

ক্যাম্পাসে আট চাকায় উড়ে চলা

মাহমুদল হক সোহাগ* ‘এমন যদি হতো, আমি পাখির মতো, উড়ে উড়ে বেড়াই সারাক্ষণ...’ এই গানটি অপছন্দ করেন, এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া যাবে না। তবে এটি নিশ্চিত করে বলা যায়, পাখির মতো উড়ে বেড়ানোর ইচ্ছা সবার মনেই জাগে। এটা বাস্তবে কখনও সম্ভব নাকি? এই প্রশ্নের উত্তর জানতে হলে যেতে হবে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকজন স্বপ্নবাজ শিক্ষার্থীর কাছে, যারা তাদের সবুজ ক্যাম্পাসের বুকে কখনও আলো ঝলমলে সকালে, কখন পড়ন্ত বিকেলে, আবার কখনও বা রাতের আকাশের তারার নিচে রঙিন পাখির মতো উড়ে বেড়ায় মনের আনন্দে। তাদের পায়ে থাকে চার চার আট চাকার জুতো, যা মাটিকে ছুঁয়ে ছুঁয়ে তাদের নিয়ে ঘুরে বেড়ায় বিশাল ক্যাম্পাসের এক প্রান্ত থেকে

বিস্তারিত পড়ুন

অতিথি পাখিদের মিলনমেলা

রাইয়ান বিন আমিন ঋতুর পালাক্রমে শীত ঘনিয়ে আসছে। এরমধ্যেই একটু-আধটু কুয়াশার চাদর পরে শীত নামতে শুরু করেছে। প্রকৃতির যখন এই অবস্থা, তখনই জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস সাজছে নতুন রূপে। সকালের বিন্দু বিন্দু শিশির ভেজা ঘাস আর সূর্যের উঁকি দেয়ার মূহুর্তে ঘাসের উপর শিশিরের ফোটা যে কাউকেই মোহনীয় করে তুলে। নৈস্বর্গিক শোভামণ্ডিত ও শিক্ষার্থীদের কলরব এবং পাখির কলতানে মুখোরিত প্রকৃতির এক সবুজ ক্যাম্পাস জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়। ষড়ঋতুর এই দেশে শীত উৎসবটা অন্য যেকোনো জায়গার চেয়ে জাবি ক্যাম্পাসে একটু বেশিই। কারণ, শীতের সময়ে যেখানে পাখির কিচির-মিচির আওয়াজের সাথে বসবাসের দূর্লভ সুযোগ মেলে ক্যাম্পাসবাসীর। লাল শাপলার মাঝে দূর থেকে আসা বিভিন্ন প্রজাতির অতিথি পাখির বাহারি খেলায় মেতে

বিস্তারিত পড়ুন